August 6, 2020

MIRROR NEWS

re-flexion of truth

করোনায় রক্ষে,বিলে কোপ

করোনায় আক্রান্ত দম্পতির রিপোর্ট নেগেটিভ এলেও বেসরকারি নার্সিংহোম থেকে ছুটি পেলেন না তারা।

কারণ লক্ষ্যাধিক টাকার বিল দাবি করেছে ওই নার্সিংহোম।

অন্যদিকে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের কথা মতো বেসরকারি নার্সিং হোমে বকেয়া যে বিল তা মিটিয়ে দেবার দ্বায়িত্ব সরকারি উদ্যোগেই।

তবু রোগীকেই ধরানো হল সেই বিল।

জুন মাসে করোনা আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হন বাগুইআটির অশোক সাহা ও সুপর্না সাহা।

তখনো তাদের লক্ষ্যাধিক টাকার বিলের পর্চা দেয় অপর এক বেসরকারি হাসপাতাল।

মিরর নিউজে এই  খবর প্রকাশিত হয়েছিল।

এর পর তোপসিয়ার একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য ভর্তি হন ওই দম্পতি।

ডাক্টার অনুপ শ্যামাল ও ডাক্টার ভাস্কর রায় এর তত্তাবধানে ছিলেন তারা।

নিয়মমাফিক ১৪ দিন চিকিৎসা চলার পর শুক্রবার তাদের কোভিড রিপোর্ট নেগেটিভ আসে।

সেই মতো শনিবার হাসপাতাল থেকে ছাড়া পাওয়ার কথা।

কিন্তু তার আগেই হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ হাতে ধরিয়ে দেন লক্ষ্যাধিক টাকার বিল।

যে খানে দেখা যাচ্ছে সুপর্ণা দেবীর জন্য খরচ হয়েছে ১,৪২,৮৮৫ টাকা ।

অন্যদিকে অশোক বাবুর ক্ষেত্রে অঙ্কটা গিয়ে দাড়িয়েছে ১,৫০,১৬১ টাকা।

যা দেখে কার্যত চোখ কপালে দম্পতির।

কিন্তু পশ্চিমবঙ্গ স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের বিবৃতি অনুযায়ী,

কোভিড রোগীর চিকিৎসা বিনামূল্যে করবে রাজ্য সরকার।

তাহলে প্রশ্ন আসছে এত বিল কেন?

বার বার কেন হয়রানির স্বীকার হতে হচ্ছে তাদের??

বেসরকারি হাসপাতালে পর্যাপ্ত আইসোলেশন ওয়ার্ড ও বেড থাকা সত্বেও কেন বেশি চার্জ করা হচ্ছে?

উপরিঅন্তু,বিল মেটাতে না পারায় এখনো তাদের ছাড় দেন নি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

তবে শুধু বাগুইআটি’র এই দম্পতিই নন,

বিল নিয়ে হয়রানির স্বীকার হতে হয়েছে রাজ্যের আরও অনেক করোনা রোগীদের।

তাই এবার  এই নিয়ে রাজ্য সরকারের হস্তক্ষেপ দাবি করছেন তারা।

PAYTM

GOOGLE PAY