March 8, 2021

বর্ষবরণে নিরাপত্তা রক্ষায় কড়া ভূমিকায় পুলিশ

রাত পোহালেই নতুন বছর।

বিদায় নেবে ২০২০।

বর্ষবরণের রাতে মানুষের ভিড় ঠেকাতে কড়া ভূমিকায় কলকাতা পুলিশ।

২০২০ সালে করোনা মানুষের জীবনকে দুর্বিষহ করে তুলেছে।

এরই মাঝে ঘূর্ণিঝড় আম্ফানের ফলেও ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন অনেক মানুষ।

গৃহহীন হয়েছেন অনেকেই।

সব মিলিয়ে ২০২০ সালটা মানুষের কাছে একেবারেই ভালোভাবে কাটেনি।

তাই এই বছরকে বিদায় দিয়ে নতুন বছরকে স্বাগত জানানোর ইচ্ছা সকলেরই।

সেই অনুষ্ঠানে সামিল হতে অনেক মানুষ কলকাতার গলি থেকে রাজপথে ভিড় জমান।

পার্কস্ট্রিট বা ভিক্টোরিয়ার মতো শহরের অনেক জায়গাতেই ভিড় হয় বর্ষবরণের রাতে।

এই শহরের যে সব জায়গাতে ভিড় হয় সেই জায়গা গুলির ভিড় নিয়ন্ত্রণ করতে ব্যবস্থা নিচ্ছে কলকাতা পুলিশ।

পুলিশের পক্ষ থেকে চলবে মাইকে প্রচার যেখানে করোনর সতর্কীকরণ প্রচার করা হবে।

বিলি করা হবে মাস্ক এবং হ্যান্ড স্যানিটাইজার।

ইতিমধ্যেই কলকাতায় নতুন প্রজাতির করোনা ভাইরাস প্রবেশ করেছে।

তাই কোনো ভাবেই অসতর্ক হওয়া যাবে না।

এই পরিস্থিতিতে কলকাতা পুলিশের মন্তব্য, মানুষ যদি সর্তকতা অবলম্বন করেন তাহলেই ভিড় কম হবে।

কিছুদিন আগে বড়দিনের রাতে কোনরকম সতর্কতা না মেনেই বড়দিনের অনুষ্ঠান উদযাপন করেছেন কলকাতাবাসী।

এই কথা ভেবে কলকাতা হাইকোর্ট বর্ষবরণের রাতে ভিড় নিয়ন্ত্রণ করতে নির্দেশ দেয় কলকাতা পুলিশকে ।

করোনার সাথে লড়াই করে অনেক সাধারণ মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন।

অনেক চিকিৎসক, নার্স, স্বাস্থ্যকর্মী, সাফাই কর্মী, বহু পুলিশকর্মী, সরকারি আধিকারিক, সাংবাদিক প্রাণ হারিয়েছেন করোনার সাথে লড়াই করে।

এই পরিস্থিতিতে বর্ষবরণের রাতে ভিড় নিয়ন্ত্রণ করার জন্য পুলিশের তরফ থেকে ১৫ টি পুলিশের সহায়তায় শিবির বানানো হয়েছে।

ভিড় সামলানোর জন্য ৫ জন অফিসার থাকবেন যারা এক একটি বিভাগের দায়িত্ব পালন করবেন।

পার্কস্ট্রিট এলাকায় ভিড় সামলানোর জন্য তৈরি করা হয়েছে একটি অস্থায়ী কন্ট্রোল রুম।